পররাষ্ট্রমন্ত্রী: ভারত ইচ্ছে করে ফারাক্কা বাঁধ খুলে দেয়নি

ভারত ইচ্ছে করে ফারাক্কা বাঁধ খুলে দেয়নি বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন। এ নিয়ে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ সঠিক নয় বলেও জানান তিনি। পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দাবি, এ সময়ে ফারাক্কা বাঁধ এমনিতেই খোলা থাকে। বুধবার রাজধানীর হোটেল লেক ক্যাসেলে আয়োচিক এক গোলটেবিল বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন তিনি।মন্ত্রী বলেন, স্বাভাবিক নিয়মেই পানির বাঁধ খুলে দিয়েছে ভারত। এটা নতুন কোনো বিষয় নয়। এ সময়ে এমনিতেই বাঁধ খোলা থাকে।প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর প্রসঙ্গে এক প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আপনারা ভারতের অবস্থান জানেন, আমাদের অবস্থান কী, সেটাও জানেন।

সুতরাং প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফর ফলপ্রসূ হবে।মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সেনাবাহিনী কর্তৃক গণহত্যা ও নির্যাতনের মুখে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের পরিচয়পত্র দিতে মিয়ানমার সম্মত হয়েছে বলে জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন।পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, নাগরিকত্ব শনাক্ত করতে রোহিঙ্গাদের যে আবেদনপত্র পূরণ করতে দেয়া হয়েছিল, সেখানে ভুল থাকার বিষয়টি স্বীকার করেছে মিয়ানমার। ইতোমধ্যে যারা শনাক্ত হয়েছেন তাদের যত দ্রুত সম্ভব ফিরিয়ে নেওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে মিয়ানমার।মন্ত্রী আরো বলেন, আজকের এই রোহিঙ্গা সংকট মিয়ানমারেরই তৈরি। সুতরাং এর সমাধান তাদেরই করতে হবে। এ বিষয়ে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে প্রায় সকল দেশ তাদের মত দিয়েছে।জাতিসংঘ অধিবেশনের সময় ত্রিপাক্ষিক আলোচনা হয়েছে উল্লেখ করে আবদুল মোমেন বলেন, জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনের সাইড লাইনে বাংলাদেশ, চীন ও মিয়ানমারের সঙ্গে ত্রিপক্ষীয় বৈঠক হয়েছে। সেখানে রোহিঙ্গা ইস্যুতে শক্তিশালী আলোচনা হয়েছে। রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে যৌথ কমিশন গঠন করা হবে। তাদের নাগরিকদের অবশ্যই ফিরিয়ে নেবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares