অসুস্থতা দেখিয়ে পুলিশ প্রহরায় ক্যাম্পাস ছাড়লেন ভিসি নাসির

অবশেষে রাতের আঁধারে পুলিশ প্রহরায় ক্যাম্পাস ত্যাগ করলেন গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরবিপ্রবি) ভিসি অধ্যাপক খোন্দকার নাসিরউদ্দিন। শিক্ষার্থীদের অব্যাহত আন্দোলনের মুখে রোববার দুপুরে তাকে প্রত্যাহারের সুপারিশ করে ইউজিসি। তার পরই অসুস্থতার কথা বলে ক্যাম্পাস ছাড়লেন তিনি।বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, রোববার রাত সোয়া ৭টার দিকে পুলিশের কড়া পাহারায় তিনি ক্যাম্পাসে সরকারি বাসভবন থেকে বের হয়ে যান। তবে তিনি কোথায় গেছেন- তা তাৎক্ষণিকভাবে জানা যায়নি।গোপালগঞ্জের পুলিশ সুপার মুহাম্মদ সাইদুর রহমান খান সাংবাদিকদের বলেন, ‘ভিসি আমাকে ফোন করে জানান, তিনি শারীরিকভাবে অসুস্থতা অনুভব করছেন। তাকে পুলিশ প্রটেকশন দিয়ে ক্যাম্পাস থেকে বের হওয়ার অনুরোধ করেন। মানবিক বিবেচনায় পুলিশ প্রটেকশনে তাকে ক্যাম্পাস থেকে বের হতে সহযোগিতা করা হয়েছে।’ভিসি কোথায় যাচ্ছেন-

এমন প্রশ্নের জবাবে এসপি বলেন, ভিসি কোথায় যাবেন সে বিষয়ে তাকে কিছু বলেননি।প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, পুলিশের কড়া পাহারায় ক্যাম্পাস থেকে বের হওয়ার সময় ভিসির গাড়ির সামনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা স্লোগান দেন এবং জুতা প্রদর্শন করেন।শিক্ষার্থীরা বলেন, ‘আজ রোববার ইউজিসি ভিসিকে প্রত্যাহারের জন্য শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ দেয়ায় তিনি রাতের আঁধারে বাংলো ছেড়েছেন। এখন তার পদত্যাগ সময়ের ব্যাপার।’এর আগে দুপুরে তাকে অপসারণের সুপারিশ করে প্রতিবেদন দেয় বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) গঠিত তদন্ত কমিটি।উল্লেখ্য, গত ১১ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়টির আইন বিভাগের ছাত্রী ও ডেইলি সানের সাংবাদিক ফাতেমা-তুজ জিনিয়াকে সাময়িক বহিষ্কার করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। জিনিয়ার বহিষ্কার নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে ১৮ সেপ্টেম্বর প্রশাসন তার বহিষ্কারাদেশ তুলে নিতে বাধ্য হয়।এর পর গত ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে শিক্ষার্থীরা ভিসির বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম, দুর্নীতি, স্বেচ্ছাচারিতা, স্বজনপ্রীতি ও নারী কেলেঙ্কারির অভিযোগ এনে তার পদত্যাগের এক দফা দাবিতে আন্দোলন শুরু করেন।তার আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিষয়ে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়া নিয়ে ওই ছাত্রীকে ফোনে গালিগালাজ করেন ভিসি, যা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এর পর আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের নিয়েও অশ্লীল মন্তব্য করেন তিনি। যা নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন ভিসি নাসির।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

shares